শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০৮:৩২ পূর্বাহ্ন১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

নোটিশঃ
ওয়েবসাইটে আপনাকে স্বাগতম। নাগরিক আইটি থেকে কম মূল্যে ওয়েবসাইট বানাতে আজই যোগাযোগ করুন। কল করুন- ০১৫২১ ৪৩৮৬০১
সংবাদ শিরোনাম :
বামিংহামে করোনা দূর্যোগে খাবার বিতরণ করেন আলহাজ্ব কবির উদ্দিন ও ওয়াছিমুজ্জামান ছাতকে মধ্যরাতে জায়গা দখল করে ঘর নির্মাণ-গ্রেপ্তার ১ সুনামগঞ্জে সহকারী শিক্ষক সমিতির উদ্যোগে হারিছ উদ্দিনের স্বরণ সভা অনুষ্ঠিত সুনামগঞ্জে বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্যদিয়ে মৎস্যজীবি লীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন হাওর বিষয়ক মন্ত্রণালয় বাস্তবায়ন আন্দোলন ফোরামের সংবাদ সম্মেলন স্বাস্থ্য পরিদর্শক ও স্বাস্থ্য সহকারীরা বেতন বৈষম্য নিরসনের দাবীতে কর্মবিরতি পালন নাজমুল হকের অকাল মৃত্যুতে নারী নেত্রী ফেরদৌস আরা পাখি”র শোক ও সমবেদনা দিরাই উপজেলা চেয়ারম্যানের সাথে মত বিনিময় করেন ডক্টর সামছুল হক চৌধুরী মাদ্রাসা উন্নয়নে নগদ অর্থ প্রদান করেন যুক্তরাজ্য প্রবাসী আবু বক্কর খাঁন সার্চ মানবাধিকার সংগঠনের উদ্যোগে ড. সামছুল হক চৌধুরী ও আবু বক্কর খাঁনকে সংবর্ধনা প্রদান
ছাতকে খাদ্য দ্রব্য মূল্য বৃদ্ধিতে জরিমানা-নিউ টাইমস্২৪

ছাতকে খাদ্য দ্রব্য মূল্য বৃদ্ধিতে জরিমানা-নিউ টাইমস্২৪

বিশেষ প্রতিনিধিঃ দেশে করোনাভাইরাস শনাক্তের খবর প্রকাশের পর বাজারে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করে মাস্ক, চাল, পেঁয়াজসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য অতিরিক্ত দামে বিক্রি করার অপরাধে দুটি ব্যাবসা প্রতিষ্টানকে জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমান আদালত। আজ বৃহস্পাতিবার সুনামগঞ্জের ছাতকে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন উপজেলা সহকারী (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট তাপস শীল। এ সময় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন, ২০০৯ এর আওতায় সাদিক স্টোর, সালিক এন্ড রমিজ ট্রেডার্স ও জননী স্টোরকে ৪৬ হাজার টাকা জরিরমানা করা হয়। জানা যায়, দেশে করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি সুযোগকে কাজে লাগিয়ে কিছু অসাধু ব্যবসায়ীরা বাজারে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করে মাস্ক, চাল, পেঁজসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য অতিরিক্ত দামে বিক্রি করছে। এমন কি অতিরিক্ত দামে বিক্রির সুযোগ নিতে নিত্যপ্রয়োজনীয় লাখ-লাখ টাকার পন্য মজুদ করে প্রকট কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করা অভিযোগ উঠেছে। আর এর সুযোগ নিচ্ছেন বিক্রেতারা। উপজেলার ধারন বাজার, গোবিন্দগঞ্জ, জাঊয়াবাজার, পিরপুরবাজার, কামারগাঁও বাজার, বাংলাবাজারসহ প্রায় সবকটি বাজারে কিছু অসাধু ব্যবসায়ীরা তারা কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য কয়েকগুণ বেশি দামে বিক্রি করছেন অভিযোগ ভোক্তাদের।
দেশে করোনাভাইরাস শনাক্তের খবর প্রকাশের পর এ সংক্রান্ত মেডিকেলসামগ্রীর চাহিদা বেড়ে গেছে। আর এর সুযোগ নিচ্ছেন বিক্রেতারা। দোকানে আর হ্যান্ডওয়াশতো উধাও হয়ে গেছে। ২০ টাকার মাস্ক বিক্রি হচ্ছে ২শ’ টাকায়। অনেক ক্ষেত্রে পাওয়া যাচ্ছেনা। পরিস্থিতি মোকাবেলায় ভ্রাম্যমান আদালতের পাশা-পাশি জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর মনিটরিং টিমকে উপজেলা পর্যায়ে মাঠে থাকার দাবী ভোক্তাদের। জরিমানা আদায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা সহকারী (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট তাপস শীল।

শেয়ার করুন
  • 33
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





themesba-zoom1715152249
©সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত।
Developed By: Nagorik IT