বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ০১:২৯ অপরাহ্ন১৩ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

নোটিশঃ
ওয়েবসাইটে আপনাকে স্বাগতম। নাগরিক আইটি থেকে কম মূল্যে ওয়েবসাইট বানাতে আজই যোগাযোগ করুন। কল করুন- ০১৫২১ ৪৩৮৬০১
সংবাদ শিরোনাম :
সার্চ মানবাধিকার সোসাইটি বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় কমিটি গঠন উপলক্ষে সদস্য অভিযান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কঠোর হস্তক্ষেপ কামনা করে মানববন্ধন করেছে মধুরাপুর গ্রামবাসী সাংবাদিক শফিউলের প্রচেষ্টায় বিশ্বম্ভপুর উপজেলায় দ্বীনি মাদ্রাসা করার পরিকল্পনা বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে বিভ্রান্ত না হওয়ার আহ্বান জানান পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান মানব পাচারকারী তাজুদ আলী ও মোস্তফা মিয়ার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের কুয়েতে বাংলাদেশের এম পি পাপুল গ্রেফতার সিলেট ছাড়ার আগে নগরবাসীর দোয়া চাইলেন বদর উদ্দিন আহমদ কামরান সুনামগঞ্জ সিভিল সার্জন কার্যালয়ের সামনে ১২ মাসের বেতনভাতা পরিশোধের দাবীতে চতুর্থ শ্রেণীর কর্মচারীদের অবস্থান কর্মসূচীতে পুলিশের লাঠিপেঠা, ৬ জন আটক এতেক্বাফরত ইমাম-মুয়াজ্জিনদের হাতে পৌঁছুল প্রধানমন্ত্রী ও স্বজন সমাবেশের ঈদ উপহার জিয়াউর রহমানের শাহাদাত বার্ষিকীতে যুক্তরাজ্য স্বেচ্ছাসেবক দলের লাইভ ভার্চুয়াল আলোচনা সভা
ছাতকে পূর্ব বিরোধের জেরে খরের ঘরে আগুন

ছাতকে পূর্ব বিরোধের জেরে খরের ঘরে আগুন

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:
সুনামগঞ্জের ছাতকে পূর্ব বিরোধের জের ধরে খরের ঘর আগুনে পুড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় গত রবিবার ১৭ মে উপজেলার ছৈলা আফজালাবাদ ইউনিয়নের দিঘলবাক গ্রামের মৃত. ছৈদ উল্লা’র ছেলে আবুল হোসেন বাদী হয়ে ছাতক থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এতে একই গ্রামের কদরিছ আলরি ছেলে আতিক মিয়া ও নজির মিয়ার ছেলে রুহুল আমিনকে আসামী করা হয়।
অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, আতিক মিয়া ও রুহুল আমিনের সঙ্গে আবুল হোসেনের বিরোধ সহ মনোমালিন্য চলে আসছিল। এক পর্যায়ে তারা আক্রোশান্নিত হয়ে আবুল হোসেন ও তার পরিবারের ক্ষতি সাধন করার পায়তারাসহ প্রাণ নাশের হুমকি দিতে থাকে। গত ১৪ মে ২০২০ইং তারিখে দিবাগত রাত আবুল হোসেন ও পরিবারের লোকজন রাতের খাবার শেষে পড়েন। রাত সাড়ে ১১টার দিকে আতিক মিয়া ও রুহুল আমিন গংরা আবুল হোসেনের বসত বাড়ীতে অনধীকার প্রবেশ করে বাড়ীর পূর্ব বিটার খরের ঘরে আগুন লাগিয়ে দেয়।

এ সময় রিয়াজ উদ্দিন বিষয়টি দেখে চিৎকার করিলে আতিক মিয়া ও রুহুল আমিন গংরা পালিয়ে যায় বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়। সুর চিৎকার শুনে অনেকেই এগিয়ে এসে পানি দ্বারা আগুন নেভানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু প্রকর আগুনের কারণে সম্পূর্ণ খরের ঘর সহ খর পুঁড়ে গিয়ে আনুমানিক ৫০ হাজার টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়।

এ বিষয়ে ছাতক থানার এস আই ইমতিয়াজ বলেন অভিযোগের প্রেক্ষিতে গতকাল সোমবার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি।

শেয়ার করুন
  • 9
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





themesba-zoom1715152249
©সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত।
Developed By: Nagorik IT