মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২০, ০৫:০০ অপরাহ্ন৬ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নোটিশঃ
ওয়েবসাইটে আপনাকে স্বাগতম। নাগরিক আইটি থেকে কম মূল্যে ওয়েবসাইট বানাতে আজই যোগাযোগ করুন। কল করুন- ০১৫২১ ৪৩৮৬০১
সংবাদ শিরোনাম :
কচুরিপানা খাওয়ার জন্য পরামর্শ দেননি পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান তাহিরপুর উপজেলায় জাতীয় সংগীত প্রতিযোগীতায় প্রথম স্থান অর্জনে তেঁলীগাও সপ্রাবি জনপ্রিয় অভিনেতা তাপস পাল আর নেই “প্রেম পাগলের ভালোবাসা’ মুক্তি পেল ফের আলোচিত নয়ন দয়া তাহিরপুর উপজেলায় হযরত ক্কারী নূর আলী শাহ্’র উরুস বুধবার দোয়ারাবাজার উপজেলায় ব্রীজের ছাদ ঢালাইয়ের উদ্বোধন “মাদক-সন্ত্রাস প্রতিরোধ আইন শৃঙ্খলা বিষয়ক মত বিনিময় সভায়” এস পি মিজানুর রহমান নন্দীগ্রামে আ’লীগের ইউনিয়ন এবং ওয়ার্ড সম্মেলনের তারিখ নির্ধারণ তাহিরপুর উপজেলায় একাধিক ফসল রক্ষা বাঁধের কাজ ধীরগতিতে তাহিরপুরে ওসির প্রচেষ্টায় পাঠলাই নদীর নৌ যানজট নিরসন
বর্তমানে দেশের যে উন্নয়ন চলছে তা সারা বিশ্বে ইতিহাস সৃষ্টি করেছে পরিকল্পনা মন্ত্রী।

বর্তমানে দেশের যে উন্নয়ন চলছে তা সারা বিশ্বে ইতিহাস সৃষ্টি করেছে পরিকল্পনা মন্ত্রী।

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ প্রতিনিধিঃ
গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের পরিকল্পনামন্ত্রী আলহাজ্ব এম এ মান্নান এমপি বলেছেন-বর্তমানে দেশের যে উন্নয়ন চলছে তা সার বিশ্বে ইতিহাস সৃষ্টি করেছে। দেশে বড় বড় উন্নয়ন সাধিত হচ্ছে,এসব উন্নয়ন দেখে কিছু কুচক্রী মহল যারা এদেশের স্বাধীনতা বিরোধী তারা উন্নয়নকে বাঁধাগ্রস্ত করার চেষ্টা করছে। স্বাধীনতা বিরোধীরা যাই করুক দেশের উন্নয়নকে দমিয়ে রাখতে পারবে না। তিনি বলেন, সরকার পুষ্টি সমন্বয়ের ক্ষেত্রে অনেক অবদান রাখছে। কিভাবে মানুষকে সুস্থ্য রাখা যায় তার সকল ব্যবস্থাই গ্রহন করছে সরকার। পুষ্টির পাশাপাশি নিরাপদ পানি ও স্যানিটেশনের সমস্যা দূর করছে সরকার। এসময় তিনি বলেন, নিরাপদ পানির কষ্ট আমি বুঝি, ছোট বেলায় নিরাপদ পানির জন্য মানুষের কষ্ট নিজের চোখে দেখেছি। নিরাপদ পানির অভাবে কলেরায় আমার আত্বীয় স্বজন মারা গেছেন, আর যাতে কেউ নিরাপদ পানির অভাবে মারা না যায় তার জন্য ৫শত কোটি টাকার প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। নিরাপদ পানি আর স্যানিটেশনের অভাবে আর কেউ মারা যাবেনা। তিনি আরও বলেন, সুনামগঞ্জের হাওরাঞ্চলের গ্রামে গ্রামে পাইপ ওয়াটার সাপ্লাাই আগামীতে চালু করা হবে। পরীক্ষামূলকভাবে সুনামগঞ্জ, ছাতক, জগন্নাথপুর কিছু কার্যক্রম শুরু হয়েছে। সরকারের টাকায় এই কার্যক্রম চলবে। দেখবেন কিছুদিন পর সুনামগঞ্জের চেহারা পাল্টে যাবে। সুনামগঞ্জ বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ, টেক্সটাইল ইন্সটিটিউটের কাজ চলমান। শীঘ্রই বিশ্ববিদ্যালয়ের কাজ শুরু হবে। এক কথায় উন্নয়নের আলোয় আলোকিত হবে সুনামগঞ্জ সহ গোটা দেশ। শহরের পাশাপাশি সড়ক বাতি দিয়ে আলোকিত করা হচ্ছে গ্রামাঞ্চলের রাস্থাঘাট। এতেই শেষ নয় আগামী কিছুদিনের মধ্যেই গ্রাম আর শহরের কোন পার্থক্য থাকবে না। বৃহ¯পতিবার সকাল ১০ টায় দক্ষিণ সুনামগঞ্জের শান্তিগঞ্জ বাজারস্থ এফআইভিডিবির হলরুমে জেলা পুষ্টি সমন্বয় কমিটির আয়োজনে ও কেয়ার বাংলাদেশের সহযোগিতায় অংশগ্রহণমুলক বহুখাত ভিত্তিক বার্ষিক পুষ্টি কর্মপরিকল্পনা ২০১৯-২০২০ উদ্বোধনী কর্মসূচিতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সুনামগঞ্জ জেলা পুষ্টি সমন্বয় কমিটির সভাপতি ও জেলা প্রশাসক মো: আব্দুল আহাদের সভাপতিত্বে ও বাংলাদেশ টেলিভিশন ও আরটিভির উপস্থাপিকা তাহমিদা তৃষার সঞ্চলনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ জেলার সিভিল সার্জন ডাঃ আশুতোষ দাস। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, জাতীয় পুষ্টি পরিষদের মহা-পরিচালক ডা: মোহাম্মদ শাহ নেওয়াজ, জনস্বাস্থ্য পুষ্টি প্রতিষ্টানের পরিচালক ডাঃ মো: খলিলুর রহমান, কেয়ার বাংলাদেশের স্বাস্থ্য কর্মসূচির পরিচালক ডাঃ মোঃ ইখতিয়ার উদ্দিন। এসময় অন্যান্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন কেয়ার বাংলাদেশের টিম লিডার নাজনিন রহমান, কেয়ার বাংলাদেশের কো-অর্ডিনেটর মোঃ হাফিজুল ইসলাম, কেয়ার বাংলাদেশের টেকনিক্যাল ম্যানেজার মোঃ হাসানুজ্জামান, টেকনিক্যাল ম্যানেজার রুমানা আফরোজ মিম, জান্নাত, আঃ শুকুর, মোঃ নাজমুল হাসান, আঃ আলিম, অরুপ কুমার দাস প্রমুখ। এসময় সুনামগঞ্জ জেলার বিভিন্ন উপজেলার কেয়ার বাংলাদেশের প্রতিনিধি, উপজেলা নির্বাহী অফিসারবৃন্দ, সরকারি কর্মকর্তাবৃন্দ ও জেলার বিভিন্ন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যানবৃন্দ ও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন
  • 14
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





themesba-zoom1715152249
©সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত।
Developed By: Nagorik IT